সোম. জুন ১৭, ২০২৪

বাগেরহাট প্রতিনিধিঃ
বাগেরহাট নার্সিং কলেজ নির্মাণের জন্য অধিগ্রহণকৃত জমির মালিকদের বাড়িতে গিয়ে ক্ষতিপূরনের চেক প্রদান করা হয়েছে। বুধবার দুপুরে বাগেরহাট শহরের হরিণখানা এলাকার জমির মালিক শেখ মোঃ মনিরুজ্জামান ও শেখ সুজানুর রহমানের হাতে ক্ষতিপূরনের টাকার চেক তুলে দেন নবাগত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আজিজুর রহমান।এসময়, বাগেরহাটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোঃ শাহিন হোসেন, ভূমি অধিগ্রহন কর্মকর্তা মমতাজ বেগমসহ জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।করোনাকালীন সময়ে কোনো প্রকার ঝামেলা ছাড়াই ক্ষতিপূরনের চেক পেয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন জমির মালিকরা।
জমির মালিক শেখ মোঃ মনিরুজ্জামান বলেন, অধিগ্রহনকৃত জমির টাকা পেতে অনেক সময় লাগে শুনেছি। আজ আমার সে ধারণা পাল্টে গেছে। এক সাথে যে ৩১ লক্ষ টাকা পেয়েছি। এই টাকা দিয়ে ভবিষ্যতের জন্য কিচু একটা করতে পারব। আরও ভাল লাগছে যে এই টাকা পেতে আমাকে কোন অতিরিক্ত খরচ করতে হয়নি। বাগেরহাটের জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ আজিজুর রহমান বলেন, ক্ষতিগ্রস্থ জমির মালিকদের করোনাকালীন সময়ে যাতে কোনো হয়রানিতে পড়তে না হয়, সেই লক্ষ্যে আমরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে চেক হস্তান্তর করছি।এর মাধ্যমে যেমন জমির মালিকরা হয়রানির হাত থেকে রক্ষা পাচ্ছে, তেমনি ভূমি অধিগ্রহনকে কেন্দ্র করে দালালচক্রের দৌরাত্ব বন্ধ হয়েছে। ভবিষ্যতেও বিভিন্ন উন্নয়ন প্রকল্পের জন্য অধিগ্রহনকৃত জমির মালিকদের এভাবেই ক্ষতিপূরণের অর্থ দেওয়ার আশ্বাস দেন তিনি।
বাগেরহাট নার্সিং কলেজ নির্মাণের জন্য বাগেরহাট পৌরসভার হাড়িখালি মৌজায় ২একর ৯২ শতক জমি অধিগ্রহন করা হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্থ ৩৪ জন মালিককে ৬ কোটি ৪৭ লাখ ৬০ হাজার ৪’শ ৫২ টাকা প্রদান করার প্রক্রিয়া চলছে। এর ধারাবাহিকতায় বুধবার শেখ মোঃ মনিরুজ্জামানকে ৩১ লাখ ১৯ হাজার ২‘শ ৫৭ টাকা এবং শেখ সুজানুর রহমানকে ৩১ লাখ ৮৪ হাজার ৩‘শ ৯ টাকার চেক দেওয়া হয়েছে।#

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *