সোম. জুন ১৭, ২০২৪

 

 

 বাগেরহাট প্রতিনিধিঃ

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলায়  শনিবার জেলা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে করোনা সচেতনতায় মাস্ক ও স্যানিটাইজার বিতরণ করা হয়েছে। কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের নির্দেশনা অনুযায়ী বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. ভূইয়া হেমায়েত উদ্দিন এসব করোনা সামগ্রী বিতরণ করেন।বিতরণকালে জেলা আওয়ামী লীগের  সহ-সভাপতি উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাড. শাহ-ই আলম বাচ্চু,সাধারণ সম্পাদক এম এমদাদুল হক,  সাংগঠনিক সম্পাদক লিয়াকত হোসেন লিটু,মোরেলগঞ্জ পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি পৌরসভার মেয়র এ্যাড. মনিরুল হক তালুকদার, সাধারণ সম্পাদক মো. হারুন-অর রশীদ, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সদস্য মো. সাইফুল ইসলাম.উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হক মোজাম, আওয়ামী লীগ নেতা ইখতিয়ার হোসেন দিলাল, অমল সাহা নান্ট, কাউন্সিলর নান্না শেখ, শংকর কুমার রায়, ওয়ালিউর রহমান সুজন,  সহ বিভিন্ন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

বিতরণকালে প্রধান অতিথি ভূইয়া হেমায়েত উদ্দিন বলেন, আওয়ামী লীগের সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশনা অনুযায়ী মহামারী এ করোনায় দুর্যোগ মুর্হুতে সকলকে সচেতনতায় স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে হবে। ঘরের বাহিরে অকারনে বের হওয়া যাবেনা। আওয়ামী লীগ সরকার সাধারণ জনগনের পাশে সার্বক্ষনিক রয়েছে।এদিকে বাগেরহাটে ব্লাড ব্যাংকের উদ্যোগে বিনামূল্যে অক্সিজেন সেবা চালু করা হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে বাগেরহাট শহরের সম্মিলনী মাধ্যমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে এই সেবার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন, বাগেরহাট সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মোছাব্বেরুল ইসলাম।

এসময় পৌরসভার কাউন্সিলর কাজী তৌহিদুর রহমান জনি, ব্ল্যাড ব্যাংকের জেলা শাখার উপদেষ্টা এ্যাডভোকেট শিকদার ইমরান, সভাপতি মো. হাসান সহ সভাপতি শেখ জাহিদুল ইসলাম, আব্দুলহ আল মাসুদ, সাধারন সম্পাদক কামাল হোসেন, সাংগঠনিক আলজাবির সহ সদস্যরা উপস্থিত ছিল।

ব্ল্যাড ব্যাংকের জেলা শাখার সভাপতি মো. হাসান বাগেরহাট  বলেন, সারা দেশে করোনার সংক্রমণের হার বৃদ্ধির সাথে সাথে বাগেরহাটও দিন দিন বাড়ছে। এরমধ্যে কঠোর লকডাউন চলছে। এই অবস্থায় মানুষ সহজে রোগীদের অক্সিজেনের চাহিদা পূরণ করতে পারে তার জন্য আমরা ৪টি অক্সিজেন সিলিন্ডারের ব্যবস্থা করেছি। কোন মুমুর্ষ রোগি অক্সিজেন প্রয়োজন হলে তখন আমরা বাড়িতে অক্সিজেন সিলিন্ডার পৌছে দিবো।

 

 

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *