শনি. মে ১৮, ২০২৪

 

মাসুম হাওলাদারঃ 

প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে দেশকে এগিয়ে নিতে যা যা করা প্রয়োজন, তাই করতে হবে,বাগেরহাট জেলা  আওয়ামী লীগ আয়োজিত  জনসভা এমপি শেখ তন্ময়।বাগেরহাট-২ আসনের সংসদ সদস্য শেখ তন্ময় বলেছেন, বাংলাদেশে আর ৭৫ দেখতে চাই না, দেশে এখনও ষড়যন্ত্র চলছে, গভীরভাবে চলছে আর তারা খুব সক্ষমভাবে চালাচ্ছে। এজন্য সকলকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। বলেন, বাগেরহাটে কোনো টেন্ডারবাজের জায়গা হবে না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশকে এগিয়ে নিতে যা যা করা প্রয়োজন, তাই করতে হবে। নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহবান জানান তিনি। শনিবার  বিকেলে খুলনা বাগেরহাট কাটাখালী মোড়ে বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে গণতন্ত্রের বিজয় দিবস উপলক্ষে বাগেরহাটে সমাবেশ তিনি এসব কথা বলেন। তিনি আরও বলেন, বাগেরহাট একটি সম্ভাবনাময় জেলা। আমরা এই জেলাকে একটি সম্মৃদ্ধ জেলায় রুপান্তর করতে চাই। সুখী সম্মৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে যা যা করা প্রয়োজন আমরা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের নিয়ে তা করব। দলীয় টেন্ডারবাজ ও চাদাঁবাজদের হুঁশিয়ার করে শেখ তন্ময় বলেন, বাগেরহাটে কোনো টেন্ডারবাজের জায়গা হবে না। যারা চাঁদাবাজি ও টেন্ডারবাজির সাথে জড়িত রয়েছেন এখনই বন্ধ না করেন, তাহলে আপনাদের বিরুদ্ধে আমরা আইনি ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হব। দলের দোহাই দিয়ে কেউ রেহাই পাবেন না। বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জেলা পরিষদের চেয়াম্যান বীর মুক্তিযোব্দা শেখ কামরুজ্জামান টুকুর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য দেন বাগেরহাট-৪ আসনের সংসদ সদস্য কেন্দ্রয় আওয়ামী লীগ নেতা অ্যাডভোকেট আমিরুল আলম মিলন, বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট ভুইয়া হেমায়তে উদ্দিন, খুলনা জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সুজিত কুমার অধিকারি, বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খান হাবিবুর রহমান, ফখরুল আলম সাহেব, মনোয়ার হোসেন টগর, সাংগঠনিক সম্পাদক মীর ফজলে সাইদ ডাবলু, নকিব নজিবুল হক নজু, প্রচার সম্পাদক তালুকদার নাজমুল কবির ঝিলাম, অর্থ সম্পাদক তালুকদার আব্দুল বাকি, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সরদার নাসির উদ্দিন, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আকতারুজ্জামান বাচ্চু,  ফকিরহাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান স্বপন দাস প্রমুখ। সমাবেশে বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের কয়েক হাজার নেতাকর্মী অংশ গ্রহণ করেন। করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পরে বাগেরহাট জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত একমাত্র ও প্রথম জনসভা হওয়ায় নেতাকর্মীদের অংশগ্রহণে কাটাখালি মোড়ে জনসমুদ্রে পরিণত হয়।

 

 

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *