সোম. মার্চ ৪, ২০২৪

বাগেরহাট প্রতিনিধিঃ
বাগেরহাটে নারী ও শিশু ধর্ষণ এবং সকল ধরনের যৌন সহিংসতার প্রতিবাদে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে আমরাই পারি প্রতিরোধ জোট।
বুধবার (২৫ নভেম্বর) সকালে জেলা প্রেসক্লাবের সামনে আমরাই পারি পারিবারিক নির্যাতন প্রতিরোধ জোট এই মানবন্ধন কর্মসূচির আয়োজন করে। জেলা প্রশাসনসহ বেসরকারি বিভিন্ন উন্নয়ন সংস্থা এই কর্মসূচিতে একাত্নতা প্রকাশ করে মানববন্ধনে অংশ নেয়।
সারাদেশে একযোগে আমরাই পারি পারিবারিক নির্যাতন প্রতিরোধ জোট এই কর্মসূচি পালন করছে।মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, নারীর পোষাককে ধর্ষণের জন্য দায়ী করবেন না। ধর্ষণের জন্য আমাদের মস্তিষ্ক ও মানসিকতা দায়ী। পোষাক যদি দায়ী হত তাহলে পাঁচ বা সাত বছরে শিশু ও বৃদ্ধারা ধর্ষণের শিকার হতেন না। তাই পোষাক নিয়ে সমালোচনা না করে দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন করা দরকার। যারা নারী ও শিশু নির্যাতন করে তাদের বিরুদ্ধে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। পরিবার থেকেই নারী ও শিশু নির্যাতন বন্ধ করতে হবে। তাহলেই নারী ও শিশু নির্যাতন বন্ধ হবে। নারী পুরুষ মিলে সবাই একযোগে কাজ করলে নারী নির্যাতন বন্ধ হয়ে যাবে। সরকারের করা আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করা গেলে অপরাধীরা এই ধরনের নির্যাতনের সাহস দেখাবে না বলেও মন্তব্য করেন বক্তারা।
মানববন্ধনে বক্তব্য দেন বাগেরহাটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহমুদ হাসান,বাগেরহাট সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ( ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) কে এম আজিজুলইসলাম,জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক হাসনা হেনা,আমরাই পারি পারিবারিক নির্যাতন প্রতিরোধ জোটের ফোকালপার্সন সদর উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রিজিয়া পারভীন, জাতীয় মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট শরীফা খানম, বাগেরহাট ফাউন্ডেশনের সাধারণ সম্পাদক আহাদ উদ্দিন হায়দার,মহিলা পরিষদের সাধারন সম্পাদক এ্যাড.পারভিন আহম্মেদ, এ্যাডভোকেট মিলন কুমার ব্যানার্জী.জাতীয় মহিলা সংস্থার চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট শরীফা খানম,

অভিবাবক ফোরামের সদস্য সচিব কল্লোল সরকার. সওকত হোসেনসহ বেসরকারি বিভিন্ন উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধিরা।

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *